মুসলমানরা এদেশের সন্তান, হুমকি-ধামকিতে কাজ হবে না- ভোলায় চরমোনাই পীর মুফতি রেজাউল করিম।

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর আমীর ও চরমোনাই পীর মুফতী সৈয়দ মোঃ রেজাউল করিম বলেছেন মুসলমানরা বাংলাদেশ ভেসে আসেনি। মুসলমানরা এদেশের সন্তান। শিয়ালের মতো হুংকার দিলেই আমরা ভয় পাব এটা ভাবা বোকামি। ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ সাহাবাদের অনুসরণ করে। আল্লাহ কুরআনে বলছেন, মুহাম্মাদ আল্লাহর রাসূল, আর তার সাহাবারা কাফেরদের প্রতি কঠোর, তাদের নিজেদের পরস্পরের প্রতি সহানুভূতিশীল। সাহাবাদের অনুসরণে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ সকল কুফফারদের মোকাবেলায় অবশ্যই কঠোরতা অবলম্বন করবে। এদেশে নাস্তিক মুরতাদ এবং ইসলামের সাথে শত্রুতা পোষণ কারীদের জায়গা হবে না।

ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন ভোলা জেলা শাখা উত্তর কতৃক আয়োজিত ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড প্রতিনিধি সম্মেলন ২০২০ এর প্রধান অতিথির বক্তব্যে চরমোনাই পীর মুফতি রেজাউল করিম একথা বলেন।

প্রধান বক্তার বক্তব্যে ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের কেন্দ্রীয় তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক ইউসুফ আহমেদ মনসুর বলেন বাংলাদেশের মাটিতে ভাস্কর্যের নামে যে পৌত্রলিকতা শুরু হয়েছে তা অচিরেই বন্ধ করতে হবে। ইসলামে মূর্তি নির্মাণ করা জঘন্যতম অপরাধ। বাংলাদেশে কোন অমুসলিম দেশ নয়। বাংলাদেশের মাটিতে এ ধরনের মূর্তি স্থাপন এদেশের জনগণ মেনে নেবে না। ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন ভোলা জেলা শাখার সভাপতি মুহাম্মদ আবুল হাসেমের সভাপতিত্বে এসময় আরো বক্তব্য রাখেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ভোলা জেলা উত্তরের সিনিয়র সহ সভাপতি মাওলানা মিজানুর রহমান, সহ-সভাপতি মাওলানা তাজউদ্দিন ফারুকী, সাধারণ সম্পাদক মাওলানা আতাউর রহমান মমতাজী, যুগ্ম সম্পাদক মাওলানা তরিকুল ইসলাম, দপ্তর সম্পাদক মাওলানা আবু ইউসুফ, প্রচার সম্পাদক মাওলানা ইউসুফ আদনান প্রমুখ। ইশা ছাত্র আন্দোলন ভোলা জেলা উত্তরের সাধারণ সম্পাদক মাওলানা হেলাল উদ্দিনের সঞ্চালনায় এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন উপজেলা সভাপতি সিরাজুল ইসলাম, ইসলামী যুব আন্দোলন এর সভাপতি হাফেজ রাশেদুল ইসলাম, ইশা ছাত্র আন্দোলনের জেলা সহ-সভাপতি ইসমাইল সহ ইসলামী আন্দোলন, ইসলামী যুব আন্দোলন, ইসলামী শ্রমিক আন্দোলন, ইসলামী ছাত্র আন্দোলনের নেতৃবৃন্দ।

ফেসবুকে লাইক দিন

আর্কাইভ

নভেম্বর ২০২০
শনিরবিসোমমঙ্গলবুধবৃহশুক্র
« অক্টোবর  
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০ 

সর্বমোট ভিজিটর

counter
এই সাইটের কোন লেখা অনুমতি ছাড়া কপি করা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ!