কারাগার থেকে বের হয়েই মাকে কুপিয়ে হত্যা

 

অনলাইন ডেস্ক, আমাদের ভোলা।

চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জে মা মনোয়ারা বেগমকে (৬৫) কুপিয়ে হত্যা করেছেন ছেলে মমিন দেওয়ান (৪২)।

বুধবার (২৭ অক্টোবর) সকালে উপজেলার পশ্চিম বড়ালী দেওয়ান বাড়িতে গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, মমিন মানসিক প্রতিবন্ধী। এ ঘটনায় ছেলে মমিনকে আটক করেছে পুলিশ। নিহত মনোয়ারা ওই বাড়ির মৃত আবদুল হাশেমের স্ত্রী।

পুলিশ জানায়, মানসিক রোগী মমিন এর আগে একটি হত্যা মামলায় জেলেহাজতে ছিলেন। তিন মাস আগে তিনি জামিন পান। তারপর থেকে তার মা ও ভাগনিকে মারধর করাসহ মেরে ফেলার হুমকি দিতে থাকেন।

স্থানীয়রা জানান, বুধবার ভোরে মমিন হঠাৎ উত্তেজিত হয়ে ঘরে থাকা দা দিয়ে কুপিয়ে তিনি তার মাকে হত্যা করেন এবং বাড়ি থেকে পালিয়ে যান। পরে তাকে আটক করতে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে একটি পোস্ট করেন ফরিদগঞ্জ থানার ওসি। পোস্ট করার কিছুক্ষণ পরই পৌর এলাকার ভাটেরগাঁও গ্রামে তাকে দেখতে পেয়ে স্থানীয় জনতা পুলিশকে খবর দেয়। পরে পুলিশ তাকে আটক করে।

ফরিদগঞ্জ থানার ওসি মোহাম্মদ শহীদ হোসেন জানান, মনোয়ারা বেগমের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য চাঁদপুর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

ফেসবুকে লাইক দিন

আর্কাইভ

ডিসেম্বর ২০২১
শনিরবিসোমমঙ্গলবুধবৃহশুক্র
« নভেম্বর  
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১

সর্বমোট ভিজিটর

counter
এই সাইটের কোন লেখা অনুমতি ছাড়া কপি করা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ!
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।