তজুমদ্দিনে ছাত্রলীগ সভাপতি পদে আলোচনায় নিয়াজ উদ্দিন সুজন।

সাইফুল ইসলাম সাকিব, তজুমদ্দিন  প্রতিনিধি।

ভোলার তজুমদ্দিন উপজেলা ছাত্রলীগের কমিটি গঠণ নিয়ে চলছে নেতাকর্মীদের দৌড়ঝাঁপ। বর্তমান কমিটি বহাল থাকলেও দলের নীতিনির্ধারণী মহল থেকে নতুন কমিটি গঠণের গুঞ্জনে ব্যস্ততম সময় পাড় করছেন নতুন পদ প্রত্যাশিরা। এদের মধ্যে মিজান উদ্দিন, ঈসতিয়াক হাসান, তুহিন তালুকদার, নিয়াজ উদ্দিন সুজন, ফরহাদ হোসেন, সাদির হোসেন রাহিম, সাঈফুদ্দিন সবুজ ও মোঃ রাকিব পোদ্দার সহ আরো একাধিক নেতাকর্মীদের নাম সভাপতি/সম্পাদক পদে শোনা যাচ্ছে। ইতোমধ্যে অনেকে বিভিন্ন মহলে জোড় লবিং তদবির শুরু করেছে। সভাপতি পদে আলোচনায় এগিয়ে আছে আওয়ামীলীগ পরিবারের সন্তান নিয়াজ উদ্দিন সুজনের নাম। নিয়াজ ঢাকা কলেজ থেকে অনার্স ও মাস্টার্স কোর্স শেষ করেছেন এবং এখানকার ছাত্রলীগের সক্রিয় সদস্য ছিলেন। ২০০১ সালে বিএনপি জামাত জোট সরকারের আমলে লুটপাট ভাংচুর সহ কুপিয়ে রক্তাক্ত করা হয়েছিলো নিয়াজের পরিবারের সদস্যদের। তজুমদ্দিন উপজেলা আওয়ামীলীগের দুর্দিন থেকে শুরু করে বর্তমানেও নেতৃত্ব দিচ্ছেন নিয়াজের পরিবারের লোকেরা। ত্যাগী আওয়ামীলীগ পরিবার হিসেবে তজুমদ্দিনের মধ্যে অন্যতম হলো এই মৌলভী পরিবার। বিগত জাতীয় নির্বাচন গুলোতে নিয়াজের সরব উপস্থিতি ছিলো চোঁখে পরার মতো। বিভিন্ন সামাজিক উন্নয়ন মূলক কর্মকান্ডের সাথে জড়িত থেকে বর্তমান ছাত্র সমাজের মধ্যে ব্যাপক গ্রহণযোগ্যতাও অর্জন করতে সক্ষম হয়েছেন তরুণ এই ছাত্রলীগ নেতা। এখানকার তৃণমূল নেতাকর্মীদের একটাই দাবি নিয়াজ উদ্দিন সুজন কে ছাত্রলীগের সভাপতি পদে দ্বায়িত্ব দেওয়া হোক।

ফেসবুকে লাইক দিন

আর্কাইভ

সেপ্টেম্বর ২০২০
শনিরবিসোমমঙ্গলবুধবৃহশুক্র
« আগষ্ট  
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০ 

সর্বমোট ভিজিটর

counter
এই সাইটের কোন লেখা অনুমতি ছাড়া কপি করা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ!