স্বামীর সঙ্গে লুডু খেলায় হেরে গৃহবধূর আত্মহত্যা

অনলাইন ডেস্ক , আমাদের ভোলা.কম।

আশুলিয়ায় স্বামীর সঙ্গে লুডু খেলায় হেরে গিয়ে অভিমান করে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে ফারজানা (১৯) নামে এক নারী আত্মহত্যা করেছেন।

বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টার দিকে আশুলিয়ার গোরাট এলাকার তাহাজ উদ্দিনের ভাড়া বাড়িতে রাজমিস্ত্রি সুমনের স্ত্রী এ আত্মহত্যা করেন।

নিহত ফারজানা রংপুর জেলার আদিতমারী থানাধীন কালিরহাট এলাকার হযরত আলীর মেয়ে। ৭-৮ মাস আগে একই এলাকার রাজমিস্ত্রি সুমনের সঙ্গে পারিবারিক সম্মতিতে তার বিয়ে হয়েছিল। তিনি স্বামী সুমনের সঙ্গে আশুলিয়ার গোরাট এলাকার তাহাজ উদ্দিনের বাড়িতে ভাড়া থাকেন।

এ ব্যাপারে নিহতের ছোট ভাই মশিউর রহমান বলেন, দুপুরে আমি ও আমার বোন ফারজানা ও ভগ্নিপতি সুমন লুডু খেলছিলাম। আমার বোন হেরে যায়। এ সময় তিনি কক্ষের অভ্যন্তরে ঢুকে আড়ার সঙ্গে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে ঝুলে পড়েন।

সে জানায়, এ সময় তার ভগ্নিপতি সুমন দ্রুত এসে জানালা খুলে দেখেন ফারজানা ঝুলে আছে। পরে দরজা ভেঙে ঢুকে ঝুলন্ত ফারজানাকে নামিয়ে গলার ওড়না খোলার পরও তিনি জীবিত ছিলেন। দ্রুত উদ্ধার করে হাসপাতালে নেয়ার পথে ফারজানা মারা যান।

আশুলিয়া থানার এসআই জামিনুর রহমান বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসা হয়। পরিবারের সদস্যদের অনুরোধে মরদেহটি ময়নাতদন্ত ছাড়াই দাফনের হস্তান্তর করা হয়।

সূত্র- বিডিমর্নিং

ফেসবুকে লাইক দিন

আর্কাইভ

জুন ২০২৪
শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
« মে    
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০  

সর্বমোট ভিজিটর

counter
এই সাইটের কোন লেখা অনুমতি ছাড়া কপি করা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ!
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।