বোরহানউদ্দিনে বিধবা নারী ধর্ষণ’ শালিশ বৈঠক’ থানায় মামলা ’ ধর্ষক গ্রেফতার।

বোরহানউদ্দিন প্রতিনিধিঃ আমাদের ভোলা.কম।

ভোলার বোরহানউদ্দিন উপজেলার টবগী ইউনিয়নে এক লম্পট কর্তৃক ধর্ষণের শিকার বিধবা নারী। সৃষ্ট ঘটনার শালিস বৈঠকে বিচার সহ উভয়কে বেত্রাঘাতের মৌখিক রায় দেন এক প্রভাবশালী এমন অভিযোগ ওই ভুক্তভোগী নারির। বোরহানউদ্দিন থানার ওসির হস্তক্ষেপে ধর্ষক লম্পট রিয়াজ গ্রেফতার হয়েছে। ধর্ষক রিয়াজ টবগী ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডের নুরুন্নবীর ছেলে। রবিবার দুপুরে ওই এলাকার জালাল ফকিরের দোকান নামক স্থান থেকে ধর্ষনের অভিযোগে রিয়াজকে আটক করে বোরহানউদ্দিন থানা পুলিশ। মামলার এজাহার সুত্রে ও ভূক্তভোগী জানায় ,ভূক্তভোগী ও ধর্ষক রিয়াজ পাশাপাশি বাড়ীর লোক।রিয়াজ বিভিন্ন সময় বিভিন্ন স্থানে বসিয়া আজেবাজে কথা বলিত এবং অনৈতিক কাজের প্রস্তাব দিত। গত ০৪-০১-১৯ ইং তারিখে তার বাসায় তাকে বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণ করে, পুনরায় গত ০২-০৫-১৯ ইং রাতে তার ঘরে জোর পূর্বক প্রবেশ করে রিয়াজ, পরে তাকে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে, তার ডাক চিৎকারে স্থানীয় লোক হাতে নাতে ধর্ষক রিয়াজকে আটক করে। পরে স্থানীয় ওই প্রভাবশালী গ্রাম্য শালিশ বৈঠকে বিচার করেন, গ্রাম্য বিচারের মধ্যে ভুক্তভোগীকে তার বাবাকে দিয়ে মারধর করেন, এবং ধর্ষক রিয়াজকে মরধর করে ছেরে দেয় , ভুক্তভোগী আরো জানায় তার র্গভে ধর্ষক রিয়াজের ৪ মাসের বাচ্চা রয়েছে। এঘটনায় ধর্ষক বিয়াজকে আসামি করে বোরহানউদ্দিন থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। যাহার নং ০৭/২০১৯। বোরহানউদ্দিন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোছাম্মদ খালেদা খাতুন রেখা জানান, বিষয়টি আমার নজরে আসে , আমি ওসি সাহেবকে আইনানুগ ব্যাবস্থা নেওয়ার জন্য বলেছি । বোরহানউদ্দিন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ আবুল কালাম মিয়া জানান, আমি শুনেছি, এই ঘটনায় গ্রাম্য শালিশ বৈঠক করে বিচার করেছে। মেয়েটি যদি ধষর্ণের শিকার হয়ে থাকে তা হলে গ্রাম্য শালিশ বৈঠকে বিচার করা ঠিক হয়নি, তবে পুলিশ ধর্ষক রিয়াজকে গ্রেফতার করেছে। বোরহানউদ্দিন থানার অফিসার ইনচার্জ ম. এনামুল হক জানায়, থানায় মামলা হয়েছে, আসামীকে আটক করা হয়েছে, তদন্ত করে আইনানুগ ব্যাবস্থা গ্রহণ করা

ফেসবুকে লাইক দিন

আর্কাইভ

জুন ২০২৪
শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
« মে    
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০  

সর্বমোট ভিজিটর

counter
এই সাইটের কোন লেখা অনুমতি ছাড়া কপি করা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ!
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।