বরিশাল শেবাচিম হাসপাতাল থেকে করোনা রোগী পালিয়ে দৌলতখানে

কাজী মহিবুল্লাহ আজাদ, আমাদের ভোলা।

বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল (শেবাচিম) কলেজ হাসপাতালের করোনা ওয়ার্ড থেকে এক রোগী পালিয়েছেন। শনিবার (২৩ মে) দুপুর ১টার পর ওই রোগীর কোনো হদিস পাওয়া যাচ্ছে না। পরে পালিয়ে যাওয়া করোনা আক্রান্ত ওই রোগী ভোলার দৌলতখান উপজেলার কলাপোপা গ্রামের তার বাড়ি থেকে উদ্ধার হন। এখন তাকে ওই বাড়িতেই আইসোলেশনে রাখা হয়েছে বলে ভোলার সিভিল সার্জন রতন কুমার ঢালী বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

এর আগে, গত ২১ মে করোনা উপসর্গ নিয়ে শেবাচিম হাসপাতালের করোনা ওয়ার্ডে ভর্তি হন ওই বৃদ্ধ। ওই দিনই তার নমুনা পরীক্ষার জন্য শের-ই বাংলা মেডিক্যাল কলেজের আরটি-পিসিআর ল্যাবে পাঠানো হয়। সর্বশেষ ২২ মে রাতে পিসিআর ল্যাব থেকে দেয়া রিপোর্টে ওই বৃদ্ধের রিপোর্ট পজেটিভ আসে। রাতেই করোনা ওয়ার্ডে দায়িত্বরতরা বিষয়টি ওই বৃদ্ধকে অবহিত করেন। পরে শনিবার দুপুরের দিকে ওই রোগীকে করোনা ওয়ার্ডে তার ওষুধ নিয়ে খুঁজতে যান দায়িত্বরতরা। তখন থেকেই তার খোঁজ পাওয়া যাচ্ছে না।

ফেসবুকে লাইক দিন

আর্কাইভ

জুন ২০২১
শনিরবিসোমমঙ্গলবুধবৃহশুক্র
« মে  
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০ 

সর্বমোট ভিজিটর

counter
এই সাইটের কোন লেখা অনুমতি ছাড়া কপি করা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ!
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।