জ্বর নিয়ে থানায়, এরপর পুলিশের সহযোগিতায় মিলল চিকিৎসা

নিউজ ডেস্ক, আমাদের ভোলা.কম।

সাতদিনের জ্বরে ভোগা ছেলেকে কোনো ডাক্তার না দেখাতে পেরে থানার দ্বারস্থ হয়েছেন এক বাবা। পরে থানার সহযোগিতায় চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) এক উপ-কমিশনারের হস্তক্ষেপে চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে মিলেছে চিকিৎসা। বৃহস্পতিবার (২ এপ্রিল) দুপুরে অসুস্থ ছেলেকে নিয়ে নগরের কোতোয়ালি থানায় যান ওই বাবা। তার অভিযোগ, চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে করোনার ভয়ে তার ছেলেকে কোনো চিকিৎসা দেয়া হয়নি। কোতোয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মহসীন বলেন, হালিশহরের বাসিন্দা ১৬ বছরের আরমান গত সাতদিন ধরে জ্বরে ভুগছিল। কিন্তু কোথাও নাকি তার চিকিৎসা হচ্ছিল না। তাই বাধ্য হয়ে সে বাবার সাথে থানায় এসে অভিযোগ করে। এই বিষয়ে আমাদের কিছু করার নেই বলার পর শুরু হয় বাবা ছেলে কান্নাকাটি। পরে এইসব বিষয় আমি জানায় সিএমপির বিশেষ শাখার উপ-কমিশনার স্যারকে। তার বিশেষ নির্দেশনায় পরে তাদের নিয়ে যাওয়া হয় জেনারেল হাসপাতালে। পরে সেখানে তাদের চিকিৎসা দেয়া হয়। সিএমপির উপ-কমিশনার (বিশেষ শাখা) মো. আব্দুল ওয়ারিশ খান  বলেন, হাসপাতালে চিকিৎসা পাচ্ছে না, এমন একটি অভিযোগ পেয়ে আমি সিভিল সার্জনের সঙ্গে কথা বলি। উনার নির্দেশে ছেলেটিকে থানা থেকে পুলিশের টিম দিয়ে আবারও জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসি। এরপর চিকিৎসা দিয়েছেন ডাক্তাররা। তাকে আপাতত জ্বরের ওষুধ দিয়েছেন। বাসায় কোয়ারেন্টিনে থাকতে বলেছেন। তার মধ্যে করোনার উপসর্গ পাওয়া যায়নি বলেছেন ডাক্তাররা।

ফেসবুকে লাইক দিন

আর্কাইভ

জুন ২০২০
শনিরবিসোমমঙ্গলবুধবৃহশুক্র
« মে  
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০ 

সর্বমোট ভিজিটর

counter
এই সাইটের কোন লেখা অনুমতি ছাড়া কপি করা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ!
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।