ভোলায় পানিতে ডুবে দুই গৃহবধূ নিহত।

আকতারুল ইসলাম আকাশ, ভোলাঃ

ভোলা সদর উপজেলার ৩নং পশ্চিম ইলিশা ইউনিয়নের ০৪নং ওয়ার্ডের পূর্ব কাজীর চর গ্রামে সায়েদুল হক মাঝি বাড়ির সায়েদুল হক মাঝির স্ত্রী মনোয়ারা বেগম (৫০) ও পার্শ্ববর্তী বাড়ির মো. শরিফের স্ত্রী শারমিন বেগম (২০) পানিতে ডুবে নিহত হয়েছেন।

মঙ্গলবার বেলা ১২টার দিকে এই ঘটনা ঘটে।

পরিবার বরাত জানা যায়, বেলা ১২টার দিকে মনোয়ারা বেগম বাড়ির সামনের ইলিশ খালে ঘরের থালা বাসন পরিস্কার করার জন্য খালে যায় এবং শারমিন গোসল করার জন্য একই সময়ে খালে যায়। দুইজনে প্রায় ৩০ গজ দূরে দুই ঘাটে ছিলো। পরে মনোয়ারা বেগমের ননদ জাহানারা বেগম মনোয়ারার লাশ পানিতে ভাসতে দেখে ডাক চিৎকার করতে থাকে। মনোয়ারা বেগমের লাশ উপরে তোলে শারমিন বেগমকে খোঁজতে শুরু করে শারমিন বেগমের পরিবার। অনেক খোঁজাখুঁজির পর শারমিন কে না পেয়ে পরিবারের লোকজন খালে জাল মারতে থাকলে নাগর মিয়া নামে একজন প্রতিবেশি তার লাশ পায় যা মনোয়ারা বেগমের কাছ থেকে প্রায় ১০ হাত দূরে।

শারমিন বেগমের পরিবার জানায়, শারমিন সাঁতার জানেনা। যার জন্য শারমিন গোসল করার সময় গভীর স্রেতে হাড়িয়ে গেলে তাকে বাঁচাতে যান মনোয়ারা বেগম। তবে পানির মধ্যেই মনোয়ারা বেগমের প্রেসার উঠে তিনি মারা জান বলে অনেকে ধারনা করছে। কারণ মনোয়ারা বেগমের ঘাড়ের রগ ছেঁড়ে গেছে বলে পুলিশ তদন্তে পাওয়া যায়।

জানা যায়, শারমিন বেগম কিছুদিন আগে শশুড়বাড়ি থেকে বাবার বাড়ি বেড়াতে আসে। প্রায় ৩ মাস আগে মাঝের চরের শরিফের সাথে তার বিবাহ হয়।

খবর পেয়ে ভোলা সদর মডেল থানার (ওসি) মো. মনিরুল ইসলাম ঘটনা স্থুলে গিয়ে সঠিক তদন্ত করে ইউপি সদস্য ও পরিবারের দরখাস্ত নিয়ে লাশ রেখে গিয়ে দুইটি ইউরি মামলা করা হবে বলে জানায়।

ফেসবুকে লাইক দিন

আর্কাইভ

ফেব্রুয়ারি ২০২৩
শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
« জানুয়ারি    
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮  

সর্বমোট ভিজিটর

counter
এই সাইটের কোন লেখা অনুমতি ছাড়া কপি করা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ!
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।